হ্যাটট্রিকে অস্ট্রেলিয়া-পাকিস্তানের পরেই বাংলাদেশ

৭২ বার পঠিত

শেষ ওভারে তাসকিন আহমেদের হাতে বল তুলে দিয়েছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। কত রান যে দিয়ে দেন! অনেকেই হয়তো এমনই ভেবেছিলেন। প্রথম বলটি ভালোই করেছেন। কভারে ঠেলে দিয়েই একটি রান নিয়ে উইকেটে থাকা স্বীকৃত ব্যাটসম্যান আসেলা গুনারত্নেকে স্ট্রাইক দেন নুয়ান কুলাসেকারা। দ্বিতীয় বলটি ছিল ফুলটস, সহজেই তা সীমানা ছাড়া করেন গুনারত্নে। কিন্তু শেষ হাসি হাসলেন তাসকিনই। তৃতীয় বলেই গুনারত্নেকে সৌম্য সরকারের ক্যাচে পরিণত করেন। পরের বলে মোস্তাফিজুর রহমানের দারুণ এক ক্যাচে ফেরেন সুরঙ্গা লাকমাল। হ্যাটট্রিক করতে পারবেন তাসকিন? সবার মনেই প্রশ্নটা ছিল। পঞ্চম বলে নুয়ান প্রদীপকে বোল্ড করে করে ফেললেন হ্যাটট্রিক!

বাংলাদেশের পক্ষে ওয়ানডেতে পঞ্চম বোলারের হ্যাটট্রিক। দেশ বিবেচনায় নিলে বাংলাদেশের চেয়ে বেশি হ্যাটট্রিক করার বোলার আছেন কেবল পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ায়। এই দুই দলেরই ছয়জন করে বোলার হ্যাটট্রিক করেছেন। ওয়ানডে, টি-টোয়েন্টি বা টেস্ট—ক্যারিয়ারে হ্যাটট্রিকের স্বপ্ন যেকোনো বোলারেরই থাকে। ওয়ানডে ক্রিকেটে তাসকিনের আগে এই স্বপ্ন পূরণ করতে পেরেছেন মাত্র ৩৫ জন বোলার। মোট হ্যাটট্রিক ছিল ৪০টি। শ্রীলঙ্কার ফাস্ট বোলার লাসিথ মালিঙ্গা একাই করেছেন তিনটি হ্যাটট্রিক। দুটি করে হ্যাটট্রিকের কীর্তি গড়েছেন পাকিস্তানের দুজন—ওয়াসিম আকরাম ও সাকলায়েন মুশতাক। এ ছাড়া দুটি হ্যাটট্রিক আছে শ্রীলঙ্কার চামিন্ডা ভাসেরও।

বাংলাদেশের পক্ষে হ্যাটট্রিকের গৌরবে সবার আগে ভেসেছেন শাহাদাত হোসেন। হারারেতে ২০০৬ সালে হ্যাটট্রিকটি জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে করেছিলেন এই পেসার। চার বছর পর এই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষেই মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে হ্যাটট্রিকের আনন্দে ভেসেছিলেন বাঁহাতি স্পিনার আবদুর রাজ্জাক। ২০১৩ সালে রুবেল হোসেনের হ্যাটট্রিকটি মিরপুরে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। মিরপুরের দর্শক সাক্ষী হয়েছে তাইজুল ইসলামের হ্যাটট্রিকেরও। বাঁ হাতি স্পিনার এই আনন্দে ভেসেছিলেন জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে।

আজ হ্যাটট্রিকে তাসকিন বাংলাদেশকেই অন্য এক উচ্চতায় নিয়ে গেছেন। ওয়ানডেতে হ্যাটট্রিক করা বোলারের সংখ্যায় বাংলাদেশ এখন দুইয়ে। বোঝা যাচ্ছে, কাজটা বাংলাদেশের বোলাররা বেশ ভালো পারেন। পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার ছয়জন করে বোলার হ্যাটট্রিক করেছেন। অবশ্য পাকিস্তানের মোট হ্যাটট্রিক আটটি। শ্রীলঙ্কার চারজন বোলার মোট সাতটি হ্যাটট্রিক করেছেন। দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে হ্যাটট্রিক করেছেন তিনজন বোলার। দুজন করে বোলার হ্যাটট্রিক করেছেন নিউজিল্যান্ড, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, জিম্বাবুয়ে ও ভারতের। টেস্টে ভারতের হ্যাটট্রিকের দীর্ঘ অপেক্ষা ঘুচিয়েছিলেন হরভজন সিং। ওয়ানডেতেও ১৯৯১ সালের পর ভারতের আর কেউ হ্যাটট্রিক করতে পারেননি।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com