আসা-যাওয়ার মিছিলে মাশরাফিদের সিরিজ হার

বৃহস্পতিবার (২৯ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ সময় ভোর পৌনে ৪টায় নিউজিল্যান্ডের নেলসন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে টসে জিতে স্বাগতিকদের ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানান লাল-সবুজের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তোজা। ২য় ওয়ানডেতে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড শিবিরে প্রথম আঘাত হেনেছেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি মুর্তজার। নিজের ও ম্যাচের প্রথম ওভারেই মার্টিন গাপটিলকে ০ রানে ফেরান তিনি। কিউইদের মোট রানও তখন শূণ্য।

কিউই শিবিরে দ্বিতীয় আঘাতটি হেনেছেন টাইগার পেসার তাসকিন আহমেদ। নিজের ২য় ওভারে নিউজিল্যান্ড অধিনায়ককে ফেরান তিনি। ফেরার আগে ৩৪ বলে ১৪ রান করেন উইলিয়ামসন। কিউইদের মোট রান ৩৭, ২ উইকেটের বিনিময়ে। তৃতীয় উইকেটের পতন ঘটে অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের বলে। নিজের ২য় ওভারে  টম লাথামকে ফেরান তিনি। ফেরার আগে ৩৪ বলে ২২ রান করেন লাথাম। নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ ১৩.১ ওভার শেষে ৩ উইকেটে ৪৭ রান। এরপরই বোলিং স্পটলাইটে আসেন মোসাদ্দেক, নিজের ১ম ওভারে নিশামকে ফেরান তিনি। ফেরার আগে ৩০ বলে ২৮ রান করেন নিশাম। নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ  তখন ২৩ ওভার শেষে ৪ উইকেটে ৯৮ রান।

ব্ল্যাক ক্যাপসদের ব্যাটিং দেয়ালে নিজের ২য় আঘাত হানলেন টাইগার ক্যাপ্টেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। দলীয় ১০৭ রানের মাথায় ম্যাশের শিকার হন কলিন মুনরো। মাশরাফির ৬ষ্ট ওভারে শিকার হওয়া আগে ৭ বলে ৩ রান করেন মুনরো। টাইগারদের একের পর এক আঘাতে তখন লণ্ডভণ্ড নিউজিল্যান্ডের ব্যাটিং লাইন। ব্ল্যাক ক্যাপসদের সংগ্রহ ২৬ ওভার শেষে ৫ উইকেটে ১০৭ রান।

সর্বশেষ আউট হয়েছে লুক রনকি। নিজের ৭ম ওভারে আঘাত হানেন তাসকিন। দলীয় ১৭১ রানের মাথায় ৬ষ্ঠ উইকেটের শিকার হন লুক রনকি। ফেরার আগে ৩৭ বলে ৩৫ রান করেন রনকি। সংগ্রহ ৩৮ ওভার শেষে ৬ উইকেটে ১৭১ রান।

এরপর শুভাশিষ রায় সানাটনারকে তুলে দেন মাশরাফির তালুতে। ১৭ বলে ৯ রান করে ফেরেন সান্টনার। দলীয় সংগ্রহ তখন ৭ উইকেট হারিয়ে ১৯৮ রান। পরবর্তী উইকেট নেন সাকিব আল হাসান। সাউদীকে ৩ রানের মাথায় সাজঘরে ফিরতে হয় বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের বলে। দলীয় সংগ্রহ তাদের ২১৪ রানে ৮ উইকেট। ফার্গুসন ফেরেন মাশরাফির বলে ৪ রান করে। শেষ উইকেট বোল্ট শুধু রান আউট হন। দলীয় সংগ্রহ সব উইকেট হারিয়ে ২৫১ রান।

কিউইদের ২৫২ রানের টার্গেটে খেলতে নেমে শুরতে কিছুটা সাবধানি খেলছিলেন তামিম ইকবাল। কিন্তু সপ্তম ওভারে টিম সাউদির বলে লাথামের হাতে বল তালু বন্দি করে দেন তামিম। ২৩ বলে ১৬ রান করে বিদায় নেন তিনি।

এরপর কিউইদের বোলিং তোপ ভালোই সামাল দিচ্ছিলেন ইমরুল কায়েস আর সাব্বির রহমান। দলীয় ৩০ রানের মাথায় ওপেনার তামিম ইকবাল ফিরে যাওয়ার পর দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে অর্ধশতক রানের (৭৫) জুটি গড়েছেন ইমরুল কায়েস ও সাব্বির রহমান। তবে ইনিংসের ২৩তম ওভারের শেষ বলে দুই ব্যাটসম্যান একই পাশে চলে এলে রানআউট হয়ে যান সাব্বির। আউট হওয়ার আগে ৩৮ রান করেন তিনি। ৩ ছক্কা ও ২ চারে এ রান করেন সাব্বির। ফার্গুসনের করা ইনিংসের ২৬তম ওভারের তৃতীয় বলে বোল্ড হয়ে ফেরার আগে ১ রান করেন রিয়াদ। ২৭ ওভার শেষে ৩ উইকেট হারিয়ে ১১৭ রান করেছে বাংলাদেশ।

এ ম্যাচে ক্যারিয়ারের ১৩তম ওয়ানডে অর্ধশতক তুলে নিয়েছেন ইমরুল কায়েস।  তবে উইলিয়ামসনের প্রথম শিকার হয়ে ফিরে গেছেন সাকিব আল হাসান (৭)। ৩০ ওভার শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৩১ রান করেছে বাংলাদেশ। ৩৬ রানের মধ্যে ৬ উইকেট হারিয়ে  ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়েছিলো বাংলাদেশ। এক উইকেটে ১০৫ রান থেকে ১৪১ রানের মাথায় ৭ উইকেট হারিয়েছে বাংলাদেশ।

এই ম্যাচেই অভিষেক হওয়া তানভীর হায়দার উইলিয়ামসনের বলে মাত্র দুই রান করে সাজঘরে ফেরেন। অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা বোল্টের বলে ক্যাচ তুলে দেন উইলিয়ামসনের হাতে। ফেরার আগে ১৯ বলে ১৭ রান করেন তিনি। পেসার তাসকিন আহমেদ সান্টনারের বলে শূণ্য রান করে ফেরেন। টাইগারদের সংগ্রহ ১৭৫ রানে ৯ উইকেট। অভিষেক হওয়া নুরুল হাসান সোহান ৩১ বলে ২৪ রান করে আউট হওয়ার সাথে সাথে শেষ হয় বাংলাদেশের ইনিংস। দলীয় সব উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৮৪ রানের। ফলাফল নিউজিল্যান্ড ৬৭ রানে জয়ী।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
৩৯ বার পঠিত
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com