‘আলোচনার ভিত হতে পারে আমার প্রস্তাব’ : খালেদা

বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া বলেছেন, সবার অংশগ্রহণে প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ একটি জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে আলোচনা শুরুর ভিত হতে পারে বিএনপির দেয়া সামপ্রতিক প্রস্তাবনা। শনিবার বাংলা ও ইংরেজি উভয় ভাষায় করা টুইটে তিনি এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এই টুইট বার্তা শনিবার সন্ধ্যা ৫.৩৪ মিনিটে বেগম খালেদা জিয়ার নিজস্ব টুইটার একাউন্টে পোস্ট করা হয়।

সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য একটি দক্ষ, নিরপেক্ষ ও উপযুক্ত নির্বাচন কমিশন গঠনের লক্ষ্যে ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতা ও বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া শুক্রবার তার দলের পক্ষ থেকে এই প্রস্তাবনা উপস্থাপন করেন। ঢাকার গুলশানে ওয়েস্টিন হোটেলে বিশিষ্ট নাগরিক, বিদেশি কূটনৈতিক মিশনের সদস্যবৃন্দ, সাংবাদিক ও দল-জোটের নেতৃবৃন্দের উপস্থিতিতে উপস্থাপিত এই ফর্মুলায় রাজনৈতিক দলগুলোর ঐকমত্যের ভিত্তিতে নির্বাচন কমিশন গঠনের প্রস্তাব দেয়া হয়েছে। বর্তমান নির্বাচন কমিশনের মেয়াদ আগামী ফেব্রুয়ারিতে শেষ হবে।

খালেদা জিয়া বাংলায় তার টুইট বার্তায় বলেছেন, নিরপেক্ষ ইসি গঠনে আমি বিএনপির প্রস্তাবনা তুলে ধরেছি। অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চাইলে ক্ষমতাসীনরাও এর ভিত্তিতে আলোচনার সুযোগ নিতে পারেন।

বিএনপি চেয়ারপার্সনের ইংরেজি টুইট বার্তায় বলা হয়েছে, I’ve presented a plan for an effective EC. For truly fair polls talks on this basis can be initated. The govt can also use this option. গ্রহণযোগ্য নির্বাচন কমিশন গঠনের প্রস্তাবনা উপস্থাপন উপলক্ষে খালেদা জিয়া আরো বলেছেন, নিরপেক্ষ নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের রূপরেখা আগামীতে যথাসময়ে উপস্থাপন করা হবে।

বিএনপি চেয়ারপার্সনের প্রস্তাবনা উপস্থাপনের সঙ্গে সঙ্গে শাসক দল আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে তাত্ক্ষণিকভাবে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করা হয়। এরপর শনিবার বেগম জিয়া তার উত্থাপিত প্রস্তাবনাকে আলোচনা শুরুর ভিত হতে পারে বলে টুইট বার্তায় অভিমত ব্যক্ত করেছেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
১৮ বার পঠিত
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com