গণতন্ত্রের অভাবেই জঙ্গিবাদের উত্থান : ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন

এই সংবাদ ৪১ বার পঠিত

দেশে গণতন্ত্র না থাকার কারণেই জঙ্গিবাদ এবং সন্ত্রাসের উত্থান হয়েছে বলে মনে করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন। তিনি বলেন, যেকোনো হত্যাকাণ্ড ঘটার পর তদন্তের আগেই পারস্পরিক দোষারোপের রাজনীতিতে মূল অপরাধীরা ধরাছোঁয়ার বাইরে থেকে যাচ্ছে। মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর রামকৃষ্ণ মিশন পরিদর্শন করে তিনি এসব কথা বলেন। রামকৃষ্ণ মিশনের এক গুরুকে ধর্মপ্রচারে নিষেধ করে কুপিয়ে হত্যার হুমকি দেওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে বিএনপির একটি প্রতিনিধিদল ধর্মীয় এই প্রতিষ্ঠানটি পরিদর্শনে আসেন।

গত বুধবার আইএসের নামে চিঠি পাঠিয়ে ঢাকার রামকৃষ্ণ মিশনের এক ধর্মগুরুকে ধর্মপ্রচারে নিষেধ করে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়। কম্পিউটার টাইপ ও হাতের লেখায় হুমকিসংবলিত চিঠিটি মিশনে আসে বলে ওয়ারী থানায় করা এক সাধারণ ডায়েরিতে (জিডি) অভিযোগ করেছেন ওই ধর্মগুরু। ওয়ারী থানা-পুলিশ জানায়, চিঠির ওপরের অংশে কম্পিউটার টাইপের মাধ্যমে ‘ইসলামিক স্টেট অব বাংলাদেশ, চান্দনা চৌরাস্তা ঈদগাঁও মার্কেট, গাজীপুর মহানগর’ লেখা রয়েছে। চিঠিতে ওই ধর্মগুরুর উদ্দেশে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ একটি ইসলামী রাষ্ট্র, এখানে ধর্মপ্রচার করতে পারবি না। ধর্মপ্রচার করা হলে ২০ থেকে ৩০ তারিখের মধ্যে তোকে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হবে।’

রামকৃষ্ণ মিশনের ধর্মগুরুকে চিঠি দিয়ে হত্যার হুমকিতে উদ্বেগ প্রকাশ করে খন্দকার মোশাররফ বলেন, সারা দেশের জনগণ এই হুমকিতে উদ্বিগ্ন। জঙ্গি ও সন্ত্রাসী গোষ্ঠী কিছু লোককে টার্গেট করে হত্যা করছে। কিন্তু সরকার বিরোধী দল দমনে ব্যস্ত থাকছে, যে কারণে জঙ্গিরা ধরাছোঁয়ার বাইরে থেকে যাচ্ছে। তারা একের পর এক মানুষ হত্যা করে যাচ্ছে। কিন্তু সরকার কোনো তদন্ত না করেই বিরোধী দলের ওপর দোষ দিচ্ছে। এতে মূল অপরাধীরা ধরা পড়ছে না। এ সময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, সহসাংগঠনিক সম্পাদক জয়ন্ত কুমার কুন্ডু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com