এ মাসেই যুবদলের কমিটি ঘোষণা হচ্ছে

এই সংবাদ ১৪২ বার পঠিত

নুর এ আলম ছিদ্দিকী # চলমান রাজনৈতিক বাস্তবতার নিরিখে ঈদের পর একগুচ্ছ পরিকল্পনা বাস্তবায়নের চিন্তা করছে বিএনপি। দলটির রাজনৈতিক পরিকল্পনার মধ্যে প্রাধান্য পাচ্ছে বিভিন্ন ইস্যুতে সরকারের প্রকৃত চেহারা জনগণের সামনে কার্যকরভাবে তুলে ধরা। আর সাংগঠনিক পরিকল্পনা গ্রহণের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে দল গুছিয়ে দুর্বলতা কাটিয়ে ওঠা। তবে বহুল আকাক্সিক্ষত হলেও রোজার মধ্যে বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণার তেমন কোনো সম্ভাবনা নেই। দলীয় সূত্রে জানা গেছে, দলের চেয়ারপারসনের পরামর্শক্রমে সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের কাজ করছেন।

কমিটি গঠনের ৮০ ভাগ কাজ শেষ। ঈদের পর মাসখানেকের মধ্যে কমিটির চূড়ান্ত ঘোষণা আসতে পারে। বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ে কথা বলে জানা গেছে, কর্মসূচি প্রণয়নের ক্ষেত্রে দলটি এখন অনেক বেশি সাবধানী। গেল দু’টি আন্দোলনের ফলাফল ও প্রভাব বিশ্লেষণ করে মূলত এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আকস্মিক কর্মসূচি দিয়ে কোনো মহলকে সুবিধা করে দিতে কিংবা দলগতভাবে আরো প্রতিকূল পরিস্থিতির মুখে পড়তে চায় না দলটি। সিনিয়র নেতারা মনে করছেন, ক্ষমতাসীনদের নানামুখী ব্যর্থতার কারণে দেশ অস্থিতিশীল পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। দেশে-বিদেশে সরকারের অবস্থাও বেগতিক। সরকার প্রকৃত অবস্থা আড়াল করতে নানা ইস্যুর অবতারণা করে বিরোধী নেতাকর্মীদের ওপর দমন-পীড়ন চালিয়ে যাচ্ছে।

এ অবস্থায় বিএনপির নতুন করে ‘সহিংস’ কোন কর্মসূচির প্রয়োজন নেই বলেই তারা মনে করেন। তবে কর্মসূচির অংশ হিসেবেই ঈদের পর বেশ কিছু পরিকল্পনা বাস্তবায়নের চিন্তা করা হচ্ছে। প্রথমত, জনসম্পৃক্ত ইস্যুতে ঢাকার বাইরে একাধিক সমাবেশ হতে পারে। সেসব সমাবেশে অংশ নিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন সরকারের ব্যর্থতাগুলো তুলে ধরবেন, সাধারণ মানুষের বঞ্চনার কথা বলবেন এবং বিপুল লোকসমাগমের মধ্য দিয়ে নেতাকর্মীদের উদ্দীপ্ত করবেন। দ্বিতীয়ত, দলের সিনিয়র নেতাদের সমন্বয়ে গঠিত একটি থিংঙ্ক ট্যাঙ্ক ইস্যুভিত্তিক একাধিক গুরুত্বপূর্ণ প্রতিবেদন তৈরির কাজে হাত দিয়েছে। এর মধ্যে কিছু প্রতিবেদনের প্রেক্ষিত আন্তর্জাতিক, কিছুতে রয়েছে চলমান ঘটনার প্রকৃত বিবরণ।

সদ্যসমাপ্ত সহিংসতাপূর্ণ ইউপি নির্বাচন নিয়ে বিস্তারিত প্রতিবেদন তৈরি করা হচ্ছে। ঈদের পর এসব রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে। সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নতুন জাতীয় নির্বাচনের ভিত তৈরি করতে কূটনৈতিক পর্যায়েও এসব প্রতিবেদন পৌঁছানো হবে। এ ছাড়া ঈদের পর আন্দোলনে কিংবা সরকারের দমন-পীড়নে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে দাঁড়াতে বিশেষ উদ্যোগ নেয়া হতে পারে। জানা গেছে, চলমান পরিস্থিতিকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েই সামনে এগোতে চায় বিএনপি। দলের চেয়ারপারসন নিজেও জোট ও দলের নেতাকর্মীদের দমন-পীড়নের মুখে ‘টিকে’ থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন।

ঈদের পরের কর্মসূচি প্রসঙ্গে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর নয়া দিগন্তকে বলেন, নির্দলীয় সরকারের দাবি আদায় এবং সরকারের অগণতান্ত্রিক কর্মকাণ্ডের প্রতিবাদে তাদের দল আন্দোলনের মধ্যেই আছে। দেশে কোনো মানবাধিকার ও আইনের শাসন নেই। জনগণের ভোটাধিকার কেড়ে নেয়া হয়েছে। বিএনপি সব সময়ই জনদুর্ভোগসহ জাতীয় ইস্যুতে গণতান্ত্রিক পন্থায় আন্দোলন করেছে এবং ভবিষ্যতেও করবে। কারণ বিএনপি জনগণের জন্য রাজনীতি করে।

মির্জা ফখরুল আরো বলেন, বিএনপি কখনো ধ্বংসাত্মক বা জ্বালাও-পোড়াওয়ের রাজনীতিতে বিশ্বাস করে না। গণতান্ত্রিক আন্দোলনের সুযোগ নিয়ে কেউ যাতে এসব করতে না পারে, সে দিকেও তাদের সতর্ক দৃষ্টি থাকবে। জানা গেছে, বিএনপির এখন মূল লক্ষ্য হচ্ছে যে করেই হোক পরবর্তী জাতীয় নির্বাচন নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু করা। দলটি মনে করছে, একটি নিরপেক্ষ নির্বাচনই কেবল তাদেরকে বর্তমান প্রতিকূল পরিস্থিতি থেকে উত্তরণ ঘটাতে পারে। একই সাথে দেশের সামগ্রিক রাজনৈতিক ও আর্থসামাজিক অবস্থারও পরিবর্তন ঘটাতে পারে।না।

বিএনপি সূত্রে জানা গেছে, এ মাসের মধ্যেই যুবদলের কমিটি ঘোষণা করা হতে পারে, যদিও দলের কেউ কেউ পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণার আগে অঙ্গসংগঠনের কমিটি দেয়ার পক্ষপাতী নন। তবে এ যুবদলের নেতৃত্বে আসছেন যুবদলের ভিতর থেকে ও সাবেক ছাত্র নেতাদের মধ্য থেকে। যুবদলের মধ্য থেকে শীর্ষ নেতৃত্বও প্রায় চূড়ান্ত করেছে ফেলেছে হাইকমান্ড। জানা গেছে, যুবদলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক হওয়ার তালিকায় রয়েছেন সেক্রেটারি সাইফুল আলম নীরব, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ক ম মোজ্জামেল হক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মীর নেওয়াজ আলী নেওয়াজ ও ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু। কেউ কেউ সাবেক ছাত্রনেতা সানাউল হক নিরু ও কামরুজ্জামান রতনকেও নেতৃত্বে আনার সুপারিশ করছেন।

যুবদলের এক নেতা বলেছেন, এই দুটো অঙ্গসংগঠনে ত্যাগীদের জায়গা দেয়া না হলে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া হতে পারে বিশ্বস্ত সুত্র্যে জানা যায় শেষ পর্যন্ত যুবদলের সভাপতি হচ্ছেন সাইফুল আলম নীরব ও সাধারন সম্পাদক হচ্ছেন আ ক ম মোজ্জামেল হক। রোজার মধ্যেই কমিটি ঘোষণা আর অন্যদের বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটিতে স্থান দেওয়া হবে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আদিত্ব্য কামাল, ব্রাক্ষণবাড়ীয়া প্রতিনিধি #

Adithay Kamal House#412, Alhampara, Bhadughar 3400 Brahmanbaria, Bangladesh Mobile : 01713-209385

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com