বাংলাদেশের বিরুদ্ধে নালিশ করবেন মমতা

নদীর পানি দূষণ ও নদীর ওপর বাঁধ দেওয়ায় পশ্চিমবঙ্গের বিস্তীর্ণ এলাকা শুকিয়ে যাচ্ছে। মরে যাচ্ছে নদী। বাংলাদেশের ফেলা আবর্জনায় দূষণ বাড়ছে পশ্চিমবঙ্গের চুর্নি ও মাথাভাঙা নদীতে। এমন অভিযোগ তুলে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কাছে নালিশ করবেন বলে জানিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। শুক্রবার রাজ্যের নদীয়া জেলায় প্রশাসনিক বৈঠকে এ ঘোষণা দেন তিনি।

নদীয়া জেলার কৃষ্ণনগরে মমতার প্রশাসনিক বৈঠকে উপস্থিত থেকে নদীয়ার কিষেনগঞ্জ বিধানসভার তৃণমূল বিধায়ক সত্যজিত বিশ্বাস বাংলাদেশ থেকে ভারতে প্রবেশ করা নদীগুলির দূষণ নিয়ে অভিযোগ তোলেন। সত্যজিত মুখ্যমন্ত্রী মমতার কাছে নালিশ জানিয়ে বলেন, বাংলাদেশ থেকে ভারতে প্রবেশ করা চুর্নি ও মাথাভাঙা নদী থেকে ব্যাপকহারে দূষণ ছড়াচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, পশ্চিমবঙ্গের চারটি বিধানসভার মধ্য দিয়ে প্রবাহিত বাংলাদেশ থেকে আসা চূর্ণি নদী ও মাথাভাঙা নদী থেকে ব্যাপকহারে দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। আগে বাংলাদেশ থেকে বছরে একবার জল ছাড়া হতো। কিন্ত এখন প্রতি মাসে জল ছাড়ছে বাংলাদেশ। ফলে দূষণের মাত্রা যেমন ছড়াচ্ছে তেমনি দুর্গন্ধে টেকা যাচ্ছে না। এই বিষয়ে মমতাকে একটা কিছু করার অনুরোধ করেন তিনি।

দলীয় বিধায়কের এই অভিযোগ শোনার পর মমতা বলেন, চূর্ণি, আত্রেয়ী, পুনর্ভবা থেকে শুরু করে নদীগুলোর বিষয়ে আমরা বার বার বলেছি। এবার রাজ্যের চিফ সেক্রেটারিকে বলব বিষয়টি নিয়ে কথা বলার জন্য। প্রসঙ্গত, বাংলাদেশকে তিস্তার জল দিতে অস্বীকার করায় যখন ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের চাপের মুখে আছেন মমতা তখন ক্রমাগত বাংলাদেশ থেকে আসা আত্রেয়ী নদী কিংবা চূর্নী নদী নিয়ে কেন্দ্রের ওপর চাপ বাড়ানোর জন্য কোমর বাঁধছেন তিনি।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
১২০ বার পঠিত
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com