তেলের বাজারে অস্থিরতা

৭৮ বার পঠিত

সিরিয়ার বিমান ঘটিতে যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষেপণাস্ত্র হামলার পর শুক্রবার অশোধিত তেল একমাসের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দামে কেনা বেঁচা হয়েছে। এছাড়া তেল অধ্যুষিত এই এলাকাটিতে আরো সংঘাত ছড়িয়ে পড়ার একটি আশংকা বিশ্ববাজারে ইতোমধ্যেই পৌঁছে গেছে।

ছয় বছর ধরে চলা সিরিয়ার গৃহযুদ্ধ কালীন সময়ে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে কঠিন এই পদক্ষেপ ছিল। এর ফলে পুরো মধ্যপ্রাচ্য অঞ্চল আবারো ভূরাজনৈতিক অস্থিতিশীলতা দেখা দিতে পারে বলে রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

এই হামলার পর তাৎক্ষণিক ভাবে তেল, স্বর্ণ, বিদেশী বিনিয়োগ ও বন্ড এর বাজার দারুণ অস্থিরতা দেখা যায়। যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষেপণাস্ত্র আক্রমণের পর আন্তর্জাতিক সময় অনুযায়ী দুপুর দেড়টায় অশোধিত ব্রেন্ট এর দাম ব্যারেল প্রতি ৩৮ সেন্ট বৃদ্ধি পেয়ে ৫৫.২৭ ডলার ছিল। দিনের সর্বোচ্চ দাম উঠেছিল ৫৬.০৮ ডলারে যেটা গত ৭ মার্চের পর সর্বোচ্চ।

জার্মিনি ভিত্তিক একটি কোম্পানির তেলের বাজার বিশ্লেষক ফ্রাঙ্ক কালাম্প বলেন, ‘গত সপ্তাহের বাধা বিপত্তি ঠেলে তেলের বাজার স্থিতিশীল অবস্থায় এসেছিল। এ ঘটনার পর আবারো অস্থিতিশীল হয়ে উঠতে পারে। ’ যদিও সিরিয়ায় তেল উৎপাদনের হার খুব সীমিত তবুও দেশটির অবস্থান ও বড় তেল উৎপাদনকারী দেশগুলোর সাথে সম্পর্কের কারনে এই হামলার ফলে তেলের উৎপাদন কমে যেতে পারে বলে ধারণা করছে বিশেষজ্ঞরা। -রয়টার্স

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্টাফ রিপোর্টার

Bogra Offce

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com