তুরস্কের ইস্তাম্বুলে নিহত ৩৯ জনের ১৫ জনই বিদেশি

৩৯ বার পঠিত
তুরস্কের ইস্তাম্বুলে নতুন বছর উদযাপনের উৎসবে নিহত ৩৯ জনের মধ্যে অন্তত ১৫ জন বিদেশি নাগরিক রয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির পুলিশ।
নিহত ১৫ বিদেশি নাগরিকদের মধ্যে ইসরাইল, বেলজিয়াম, লেবানন, জর্ডান, ফ্রান্স, তিউনেশিয়া, সৌদি আরব এবং ভারতের নাগরিক রয়েছে।
দেশটির প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, বন্দুকধারী সন্ত্রাসী শুরুতেই একটি বিশৃংখলা সৃষ্টি করে। পরে সে এলোপাতাড়ি গুলি করা শুরু করে। এতেই এত সংখ্যক মানুষের প্রাণহানি ঘটে।

ভয়াবহ হামলার শিকার রেইনা নাইট ক্লাবটি শহরের একটি অভিজাত হোটেল হিসেবে পরিচিত। স্থানীয় সময় শনিবার দিবাগত রাত সোয়া একটার দিকে এই হামলা হয়। হামলার সময় নৈশ ক্লাবটিতে শত শত ব্যক্তি অবস্থান করছিল। তারা নতুন বছর উদযাপনের উৎসবে অংশ নিয়েছিল। নৈশ ক্লাবে গুলির এই ঘটনাকে সন্ত্রাসী হামলা হিসেবে বর্ণনা করেছেন প্রাদেশিক গভর্নর। গভর্নর বলছেন, এক ব্যক্তি এই হামলা চালিয়েছে।

তিনি বলেন, সান্তা ক্লজের পোশাক পরে বন্দুকধারী সন্ত্রাসী রেইনা নাইট ক্লাবে হামলায় চালায়। ক্লাবে ঢোকার আগে সে একজন পুলিশ কর্মকর্তা এবং একজন বেসামরিক ব্যক্তিকে হত্যা করে। এরপর নাইট ক্লাবে ইংরেজি নববর্ষ উদযাপনরত ব্যক্তিদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালাতে থাকে।
হামলাকারীর হাতে কালাশনিকভ অ্যাসাল্ট রাইফেল ছিল বলে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম আলজাজিরার খবরে বলা হয়েছে।

হামলায় ১৫ বিদেশী নাগরিকসহ ৩৯ জন নিহত এবং ৬৯ আহত হয়েছে। আহতদের বেশ কয়েকজনের জনের অবস্থা সংকটাপন্ন বলে জানিয়েছেন তুর্কি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। ঘটনার সময় অনেকেই বসফরাস প্রণালীতে ঝাঁপিয়ে পড়ে প্রাণে রক্ষা পেয়েছেন। পুলিশ পরে তাদের উদ্ধার করেছে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com