দুর্নীতির প্রধান কারণ জমির অতিমূল্যায়ন

৮০ বার পঠিত

রাজধানীর গুলশান, বনানীর জমির মূল্য এখন টোকিও, লন্ডন এমনকি নিউইয়র্ক থেকেও বেশি। একই সঙ্গে বেড়েই চলছে নগরের জমির মূল্য। তাই নিশ্চিত লাভের আশায় শিল্পে বিনিয়োগ না করে জমি কিনছে শিল্পপতিরা।

শনিবার রাজধানীর মিরপুরে বাংলাদেশ ব্যাংক ট্রেনিং একাডেমিতে তৃতীয় বাংলাদেশ ইকোনমিস্ট ফোরামের (বিইএফ) সম্মেলনে অর্থনীতিবিদরা এ কথা বলেন। দিনব্যাপী এ সম্মেলনে এবারের বিষয় ছিল নগরায়ন এবং ভূমি ব্যবস্থাপনা। সরকারি এবং বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত অর্থনীতিবিদ এবং গবেষকরা এ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন।

সম্মেলনের উদ্বোধন করেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। শুরুতে অধিবেশনে ‘বাংলাদেশের নগরায়ন’ বিষয়ে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড.আতিউর রহমান। বিকালের অধিবেশনে ‘বাংলাদেশের ভূমি ব্যবস্থাপনা’ বিষয়ে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনা করেন ইউনিফাদের সাবেক পরিচালক মোহাম্মদ আলমগীর।

আইনমন্ত্রী বলেন, প্রাতিষ্ঠানিক বিভিন্ন ক্ষেত্রে এখনো বাংলাদেশ শক্তিশালী না। দেশকে এগিয়ে নিতে হলে প্রতিষ্ঠানগুলোকে শক্তিশালী করা প্রয়োজন। প্রাতিষ্ঠানিকভাবে দুর্বলতাগুলো দূর করতে পারলে সক্ষমতা বৃদ্ধি পাবে।

বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড. ওয়াহিদউদ্দিন মাহমুদ বলেন, জমির দাম বাড়ছে লাগামহীনভাবে। টোকিও, লন্ডন এবং নিউইয়র্ক শহরের মতো ঢাকার জমির দাম। রাতারাতি বড়লোক হওয়া যায় এ জমি ব্যবস্যা করে। জমির অতিমূল্যের কারণে ভূমি দস্যুতার সৃষ্টি।

তিনি আরও বলেন, মূল্যষ্ফিতির চেয়ে অনেক দ্রুত গতিতে বাড়ছে জমির মূল্য। এ কারণে জমির বাজারে ফটকাবাজী হয়। কালো টাকার নিরাপদ বিনিয়োগের জায়গা জমি। এসব কারণে স্বল্প আয়ের নগরবাসীর নাগালের বাইরে আবাসনের স্বপ্ন।

বেসরকারি গবেষণা সংস্থা পিপিআরসির নির্বাহী চেয়ারম্যান ড. হোসেন জিল্লুর রহমান বলেন, জনসংখ্যা নগরের মূল সমস্যা না। সুশাসনের প্রশ্ন এখানে প্রকট। আরও রয়েছে দক্ষ জনশক্তির সংকট। প্রকৃত প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ করে গড়ে তুলতে পারলে প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বাড়বে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্ণর ড. আতিউর রহমান বলেন, গ্রামে ক্ষুদ্র ঋণ, কৃষি ঋণ, এসএমই ঋণ, মোবাইল ব্যাংকিং প্রসার যেভাবে ঘটেছে নগরে সেভাবে এখানো ঘটেনি। একই সঙ্গে নগরবাসীর জীবন চলাকে আরো সহিঞ্চু, যুগোপোযোগী করতে আর্থিক এবং স্থানিক সবুজায়নের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার বিকল্প নেই।

পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) চেয়ারম্যান কাজী খলিকুজ্জামান আহমেদ বলেন, ঋণ দিলেই শুধু হবে না। অর্থনৈতিক শিক্ষা না দিতে পারলে অর্থ দিলে তা দরিদ্র বিমোচনে কোন কাজে আসবে না। পিকেএসএফ এ বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়েই ঋণ দেয়।

বেসরকারি গবেষণা সংস্থা বিজিআইডি নির্বাহী পরিচালক সুলতান হাফিজ রহমান বলেন, ৪১টি সংস্থা রাজধানীতে সেবা দেওয়ার জন্য সৃষ্টি করা হয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়হীনতার কারণে আরও বেশি সুবিধা থেকে বঞ্চিত নগরবাসীরা।

সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (বিআইডিএস) মহাপরিচালক ড. কে এ এস মুরশিদ, বিআইডিএসের সাবেক মহাপরিচালক ড. মোস্তফা কে মুজেরি এবং পিআরআই অপারেশন ডিরেক্টর ড. খুরশিদ কামাল।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সুব্রত দেব নাথ

সিনিয়র নিউজরুম এডিটর

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com