শিক্ষক হত্যাচেষ্টা: ১০ দিনের রিমান্ডে ফাহিম

১৬ বার পঠিত

মাদারীপুরে কলেজ শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীকে হত্যাচেষ্টার মামলায় ঘটনাস্থল থেকে জনতার হাতে গ্রেপ্তার সন্দেহভাজন জঙ্গি সদস্য গোলাম ফাইজুল্লাহ ফাহিমকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। শুক্রবার মাদারীপুরের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ফাহিমকে হাজির করে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও সদর থানার এসআই বারিউল ইসলাম ১৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রিপন চক্রবর্তীর ওপর হামলার ঘটনায় গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে মাদারীপুর সদর মডেল থানায় মামলা হয়। মামলায় ছয়জনকে আসামি করা হয়েছে।

গত বুধবার বিকালে সরকারি নাজিমউদ্দিন কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক রিপন চক্রবর্তীকে জঙ্গি কায়দায় কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করে কয়েকজন যুবক। তারা শহরের কলেজ গেইট এলাকায় রিপনের বাসার কড়া নেড়ে ঘরে ঢোকে এবং এরপর চাপাতি দিয়ে মাথা ও ঘাড়ে আঘাত করে। রিপনের চিৎকারে আশপাশের মানুষ এগিয়ে এসে ফাহিমকে আটক করে। আহত শিক্ষককে প্রথমে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে এবং পরে সেখান থেকে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। রিপন চক্রবর্তী এখন শঙ্কামুক্ত বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা।

মামলার বাদী এসআই আয়ুব আলী বলেন, ফাহিমের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ছয়জনের নাম উল্লেখ করে মামলা হয়েছে। আসামিরা হলেন সালমান তাকসিন ওরফে আবুল হোসেন ওরফে শালিম (১৮), শাহরিয়ার হাসান ওরফে পলাশ (২২), জাহিন (২৩), রায়হান (২৪), মেজবাহ (২৪) ও ফাহিম (২০)। মামলায় ফাহিমকে প্রধান আসামি করা হয়েছে।

মাদারীপুর সদর থানার ওসি জিয়াউল মোরশেদ জানান, ফাহিম প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হত্যাচেষ্টায় জড়িত আরও পাঁচজনের নাম বলেন। ওই ছয়জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতপরিচয় আরও কয়েকজনকে আসামি করা হয় মামলার এজাহারে। ওসি বলেন, ফাহিম নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে জড়িত। দেশের দক্ষিণাঞ্চলে জঙ্গি কর্মকাণ্ড বিস্তৃত করার পরিকল্পনা নিয়ে মাদারীপুরে প্রথম হামলা চালায় তারা।

—-সংবাদ মাধ্যম

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com