রাষ্ট্রদ্রোহ মামলায় ৭ দিনের রিমান্ডে আসলাম

এই সংবাদ ২৪ বার পঠিত

রাষ্ট্রদ্রোহ মামলায় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব আসলাম চৌধুরীকে সাত দিনের রিমান্ডে নেয়ার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। মঙ্গলবার ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে তাকে হাজির করা হয়। ঢাকা মহানগর হাকিম গোলাম নবীর আদালত তার জামিনের আবেদন নাকচ করে সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।  এর আগে সোমবার আসলাম চৌধুরীকে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলাসহ নাশকতার আরো দুই মামলায় আদালতে রিমান্ড শুনানির জন্য হাজির করা হলে ঢাকা মহানগর হাকিমের পৃথক তিন আদালত রিমান্ড শুনানি না করেই কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। তবে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলাটি শুনানির জন্য আজ দিন নির্ধারণ করা হয়।
 
এর আগে ২৭ মে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) পরিদর্শক ফজলুল হক আসলামকে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে ১০ দিন রিমান্ডে নেয়ার আবেদন করেন।  এ ছাড়া ২৪ মে লালবাগ ও মতিঝিল থানায় করা দুটি নাশকতার মামলায় আসলামকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে ১০ দিন করে রিমান্ডে নেয়ার আবেদন করেছিল পুলিশ। এ দুটি মামলা আগামী ৬ জুন শুনানির জন্য দিন নির্ধারণ করা হয়েছে।
 
রাজধানীর কুড়িল বিশ্বরোড এলাকা থেকে ১৫ মে বিকেলে আসলাম চৌধুরীকে গ্রেফতার করে পুলিশ।ইসরাইলি গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদের সঙ্গে যোগসাজসের অভিযোগ আনা হয় তার বিরুদ্ধে। অভিযোগে বলা হয়, ইসরাইলি নাগরিক এন সাফাদির সঙ্গে তিনি বাংলাদেশের সরকার পতনের ষড়যন্ত্র করেছেন। বিএনপি এবং আসলাম চৌধুরীর পক্ষ থেকে এ অভিযোগ অস্বীকার করা হচ্ছে।
 
অন্যদিকে আলোচিত সাফাদির সঙ্গে বৈঠকের অভিযোগ আনা হয় প্রধানমন্ত্রীপুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের বিরুদ্ধেও। বিবিসির এক প্রতিবেদনে এন সাফাদির এক সাক্ষাৎকারের উল্লেখ করে জানানো হয়, তার সাথে জয়ের  সাক্ষাৎ হয়েছিল।  প্রতিবেদন প্রকাশের দুইদিন পর বিষয়টি অস্বীকার করেন সজীব ওয়াজেদ। তিনি একে বিএনপির ষড়যন্ত্র বলে অভিহীত করেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com