আজ বৃহস্পতিবার, ৬ই আশ্বিন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং, ২৯শে জিলহজ্জ, ১৪৩৮ হিজরী, শরৎকাল, সময়ঃ সকাল ৭:৩৮ মিনিট | Bangla Font Converter | লাইভ ক্রিকেট

বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী মিটার উদ্ভাবন করলেন রুয়েটের দুই শিক্ষার্থী

জি.এ.মিল্টন, রাবি প্রতিনিধি # বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী মিটার উদ্ভাবন করলেন রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) দুই শিক্ষার্থী। বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) কেন্দ্রীয় ক্যাফেটারিয়ায় এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান ওই দুই শিক্ষার্থী। শিক্ষার্থীরা হলেন কে এম নাজমুল হাসান সজীব ও সবার্থ গোস্বামী প্রীতম। তারা উভয়ই যন্ত্রকৌশল বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী।

বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী মিটারের মাধ্যমে  বিদ্যুৎ অপচয়, বিদ্যুতের মিটার রিডিং, অনিয়ম, মিটার হ্যাকিং, বিদ্যুতের লাইন থেকে চুরি কমিয়ে আনা যাবে। ইন্টেলিজেন্স এনার্জি ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম ( আইইএমএস) নামের এ প্রযুক্তি নিয়ে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী মিটার নিয়ে কাজ করছেন। লিখিত বক্তব্যে তারা বলেন, বর্তমানে প্রচলিত ডিজিটাল মিটারে অটোমেটেড মিটার রিডার, যা কিনা শুধুমাত্র অটোমেটিক্যালি এনার্জি বা বিদ্যুত খরচ পরিমাপ করাতেই সীমাবদ্ধ। কিন্তু আমাদের স্মার্ট মিটার শুধুমাত্র  বিদ্যুৎ খরচ পরিমাপই নির্ধারণ করেনা বরং দিনে কোন এক্সেসরিজ (লাইট, ফ্যান, টিভি ইত্যাদি) কতটুকু সময় চলেছে তাও পরিমাপ করে।

তারা আরও বলেন, উন্নত এলগোরিদম ব্যবহার করে সফটওয়ারটি ব্যবহাকারীকে জানিয়ে দিবে চলতি মাসে কিভাবে বিভিন্ন বৈদ্যুতিক যন্ত্রপাতি ব্যবহার করলে বিদ্যুত বিল তুলনামূলক কম হবে। এছাড়াও লাইট, ফ্যান, এসি, ওয়াটার হিটার ইত্যাদি কন্ট্রোল করা যাবে এখান থেকে। প্রতিটি বাসা কিংবা ইন্ডাস্ট্রি থেকে কি পারিমাণ ক্ষতিকর গ্রীণহাউজ গ্যাস নির্গত হচ্ছে এবং তা সহনীয় মাত্রায় আছে কিনা তা জানিয়ে দেবে। প্রতিমাসে আমরা কতটুকু বিদ্যুত খরচ করতে চাই তা সফটওয়ারে জানিয়ে দিলে তা বৈদ্যুতিক যন্ত্রগুলোর লোড লিমিট করে খরচটা বেঁধে দেয়া মানের আশেপাশে রাখার চেষ্টা করবে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, গ্রাম থেকে শহর সারা দেশে এই সুবিধা পেতে এন্ড্রোয়েড মোবাইল, ইন্টারনেটের মাধ্যমে কাজ করা যাবে। এছাড়াও যাদের ইন্টারনেট, এন্ড্রোয়েড সুবিধা নেই তাদের জন্যে মোবাইলের ম্যসেজের মাধমে এসব সুবিধা দেয়া হবে। বিদ্যুত সাশ্রয়ী মিটার উদ্ভাবনের কারণ জানতে চাইলে তারা বলেন, এর মাধ্যমে আমাদের  দেশে বিদ্যুৎ অপচয় রোধ করা সম্ভব হবে। মূলত আমরা দেশের জন্য কিছু করার মানসিকতা থেকেই এ সাশ্রয়ী বিদ্যুত মিটার নিয়ে কাজ করেছি। সরকারীভাবে বিদ্যুৎ বোর্ড কর্তৃক আমাদের বিষয়টিকে গুরুত্বের সাথে দেখা হলে সারা দেশের মানুষ আমাদের এ উদ্ভাবনীর সুবিধা ভোগ করতে পারবে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com