রাবিতে অধ্যাপক রেজাউল হত্যার একবছর

দ্রুত বিচারের দাবিতে নানা কর্মসূচি

৪৯ বার পঠিত

জি.এ.মিল্টন, রাবি প্রতিনিধি : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক এএফএম রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যার এক বছর পূর্তিতে ক্যাম্পাসে র‌্যালি, সমাবেশ ও মাবনবন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ইংরেজী বিভাগ ও বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি এসব কর্মসূচি পালন করে। সমাবেশ ও মাববন্ধন থেকে দ্রুত অধ্যাপক রেজাউল হত্যারকা-ের দ্রুত বিচার দাবি জানানো হয়।

বিভাগের উদ্যোগে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে একটি শোক র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে বিভাগের সামনে মুকুল মঞ্চে গিয়ে সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ইংরেজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক মাসউদ আখতার, বিভাগের অধ্যাপক শহীদুল্লাহ, বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা মিজানুর রহমান, বিভাগের শিক্ষার্থী মোস্তাফিজুর রহমান, মিজানুর রহমান, জুহুরুল ইসলাম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, আজ এই হত্যাকা-ের এক বছর অতিক্রান্ত হলো কিন্তু এখনো দৃষ্টান্তমুলক কোন বিচার হয়নি। তাদেরকে বিচারের আওতায় আনা হয়নি। পুলিশ কখনো বলছে মুল হত্যাকারী দেশের বাইরে আবার কখনও বলছে দেশের ভিতরে। কিন্তু তাদেরকে পুলিশ ধরতে পারেনি। তারা এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরে। তাহলে আমরা মনে করছি পুলিশ তাদের ভয় করছে।

বক্তারা আরও বলেন আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে বলতে চাই, তারা যেন এই হত্যাকারীকে দ্রুত বিচারের আওতায় নিয়ে এসে তাদেরকে দ্রুত বিচারের কাঠগড়ায় আনতে হবে। তারা আরও বলেন আমরা রেজাউল স্যারকে যেন একুশে পদক দেয়া হয়। এর মাধ্যমে আমরা হত্যাকারীদের বলতে চাই হত্যাই কখনো মানুষকে শেষ করে না। মানুষ তার কর্মের মাধ্যমে বেঁচে থাকে।

এদিকে একই ঘটনার দাবিতে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনে সামনে মানবন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি।

শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক শাহ্ আজম শান্তনুর সঞ্চালনায় মানববন্ধনে সমিতির সভাপতি অধ্যাপক শহীদুল্লাহ্ বলেন, রেজাউল স্যার হত্যাকা- মামলার একটি চার্জশিট দিতে দেখেছি। কিন্তু চূড়ান্ত পরিণতিতে বিচারকার্য এগিয়ে নিতে দেখি না। মামলায় যে অগ্রগতি হয়েছে, তাতে আমরা সন্তোষ্ট নই। আমরা খুনিদের ফাঁসি চাই।

মানববন্ধনে ইংরেজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক মাসউদ আখতার বলেন, ‘এই সমাজে যে বর্বরতা, নৃশংসতা ও অসহিষ্ণুতার সংস্কৃতি শক্তিশালী রূপ ধারণ করেছে, তা থেকে আমাদের মুক্তি পেতে হলে, আমাদের সমাজ চেতনা ও ব্যক্তি চেতনায় ইতিবাচক রূপান্তর ঘটাতে হবে।’

শিক্ষক সমিতির নবনির্বাচিত সভাপতি অধ্যাপক নজরুল ইসলাম বলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে সবচেয়ে বেশি জঙ্গি হামলা হয়েছে এবং তাদের হামলায় সবথেকে বেশি শিক্ষক মারা গেছেন। নিয়মিত বিরতিতে এই শিক্ষক হত্যা বন্ধ করতে চাই।’

মানববন্ধনে পরিবেশবিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক সুলতান-উল-ইসলাম ও আইন বিভাগের অধ্যাপক হাসিবুল আলম প্রধান বক্তব্য দেন।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ২৩ এপ্রিল নগরীর শালবাগান এলাকার নিজ বাড়ির অদূরে অধ্যাপক রেজাউলকে নৃশংসভাবে কুপিয়ে হত্যা করে জঙ্গিরা। এ ঘটনায় গত ০৬ নভেম্বর আট জঙ্গির বিরুদ্ধে অভিযোগ দেয় পুলিশ।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

জি.এ.মিল্টন, রাবি প্রতিনিধি #

গাউছুল আজম মিল্টন শহীদ হবিবুর রহমান হল, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী - ৬২০৫ ০১৭৬৩-২৩৭৭৭৬

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com