,

AD
নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

হত্যার হুমকিতে মন্দির ছেড়ে আত্মগোপনে সেবা নন্দ দাস !

লাইক এবং শেয়ার করুন

স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহ # এবার ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার রাধা গোপিনাথ মন্দিরের পুরোহিত সেবা নন্দ দাসকে মোবাইলে ও চিঠিতে হত্যার হুমকি দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। হুমকি পাওয়ার পর থেকে মন্দির ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন ওই পুরোহিত। মন্দিরের কেউ তার খোঁজ জানেন না।

রবিবার দুপুরে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে মন্দিরের সেবক পূর্ণিমা বারই সাংবাদিককে জানান, দীর্ঘদিন ধরে সেবা নন্দ দাস এই মন্দিরে পুরোহিত হিসেবে পূজা অর্চনা করে আসছিলেন। সম্প্রতি তাকে মোবাইল ফোনে ও চিঠিতে কে বা কারা হত্যার হুমকি দিয়েছে। এদিকে রাধা গোপিনাথ মন্দিরের সভাপতি জানান, গতকাল রাতে কালীগঞ্জ উপজেলার  শিবনগর গ্রামের রাধা গোপিনাথ মন্দিরের  পাশে একটি খামে মন্দিরের সভাপতি নিখিল অধিকারী ও পুরোহিত সেবা নন্দ দাস কে হত্যার হুমকি দিয়ে একটি চিঠি ফেলে রেখে যায় ।

এ ঘটনার তাদের মধ্যে আতংক বিরাজ করছে । ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন মন্দিরের সভাপতি নিখিল অধিকারী । এ ঘটনায় আজ সকালে কালীগঞ্জ থানায় সাধারন ডায়রী করা হয়েছে। এরপর থেকে সেবা নন্দ দাস আর মন্দিরে আসছেন না। হুমকি পাওয়ার পর মন্দির ছেড়ে আত্মগোপনে আছেন ওই পুরোহিত। পুরোহিত সেবা নন্দ দাস কোথায় গেছেন তাও তিনি বলতে পারেননি।

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম সাংবাদিককে জানান, ঘটনা শোনার পর মন্দিরের নিকটবর্তী সুর্বণসরা ক্যাম্পের আইসি (এস,আই) আক্তারুজ্জামানকে বিষয়টি সম্পর্কে খোঁজ খবর নিতে বলা হয়েছে। এ ব্যাপারে ঝিনাইদহের সুর্বণসরা ক্যাম্পের আইসি (এসআই) আক্তারুজ্জামান জানিয়েছেন, সেবা নন্দ দাস পুরোহিতকে হত্যার হুমকি দেয়ার বিষয়টি সত্য নয়।

তিনি আরো বলেন, পুরোহিত সেবা নন্দ দাসের পরিবারের লোকজনের সঙ্গে তিনি কথা বলে জেনেছেন, পুরোহিত ব্যক্তিগত কাজে ঢাকাতে গেছেন। সে বিষয়টি মন্দিরের সেবক পূর্ণিমা বারই হয়তো জানেন না বলে একথা বলেছেন। উল্লেখ্য, চলতি মাসের প্রথম দিকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার করাতিপাড়া গ্রামের পুরোহিত আনন্দ গোপাল গাঙ্গুলী হত্যার পর থেকে আতঙ্কে রয়েছেন জেলার বিভিন্ন মন্দিরের পুরোহিরা। এ ঘটনার কিছু দিন পরই কালীগঞ্জের রাধা গোপিনাথ মন্দিরের এ পুরোহিতকে হত্যার হুমকি দেওয়া হলো।


লাইক এবং শেয়ার করুন
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

আরও অন্যান্য সংবাদ