,

AD
নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

আড়াই মাস পর বাসায় ফিরলেন লাকী আখান্দ

লাইক এবং শেয়ার করুন

টানা আড়াই মাস হাসপাতালজীবন শেষে গত সপ্তাহে আরমানিটোলার নিজ বাসায় ফিরেছেন সংগীতশিল্পী লাকী আখান্দ। তিনি এখন আগের তুলনায় বেশ ভালো আছেন বলে জানা গেছে। শিল্পীর পাশে ফাউন্ডেশন’ সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবী টিংকু জানিয়েছেন,  ‘সবার দোয়া আর ভালোবাসায় লাকী ভাই এখন আগের চেয়ে অনেক ভালো আছেন। হাসপাতালে থাকতে মাঝে মাঝে চেতনা ফিরলেও তেমন কাউকে চিনতে পারতেন না। তবে এখন সে পরিস্থিতি নেই।’ 

তিনি আরও বলেন, ‘দুদিন আগে কণ্ঠশিল্পী লীনু বিল্লাহ বাসায় গেছেন লাকী ভাইকে গান শোনাতে। আশির দশকে যে গান দুটির সুরকার-সংগীত পরিচালক লাকী ভাই ছিলেন। তবে এখন নতুন সংগীতায়োজন করেছেন তমাল। মূলত গান দুটির নতুন সংগীতায়োজন কেমন হয়েছে, সে পরামর্শের জন্য লীনু ভাই গিয়েছিলেন। তিনি খুব মন দিয়ে গান দুটি শুনলেন। প্রশংসা করলেন। আবার দুটি কারেকশনও দিলেন! মিউজিকের প্রতি এখনও মানুষটার যে আগ্রহ ও বিচক্ষণতা, সেটা সত্যিই বিস্ময়কর।’ 

টিংকু লাকী আখান্দের পরিবারের পক্ষ থেকে সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।  গত ৫ ফেব্রুয়ারি বরেণ্য এ শিল্পীর শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে বিএসএমএমইউ’র সেন্টার ফর প্যালিয়েটিভ কেয়ারে ভর্তি করা হয়। তিনি সেখানে অধ্যাপক নেজামুদ্দিন আহমেদের অধীনে চিকিৎসাধীন ছিলেন। লাকীর শরীরের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে অধ্যাপক নেজামুদ্দিন বলেন, ‘তিনি এখন ভালো আছেন। আগেও বলেছি, এ বিষয়ে নতুন কোনো চিকিৎসা নেই। চলমান চিকিৎসা ও পর্যবেক্ষণের মাধ্যমে যতক্ষণ রোগীর অবস্থা ভালো রাখা সম্ভব।’ 

প্রসঙ্গত, গুণী এই সংগীতজ্ঞ অনেক দিন ধরেই মরণ ব্যাধি ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করছেন। ছয় মাসের চিকিৎসা শেষে থাইল্যান্ডের ব্যাংকক থেকে ২০১৬ সালের ২৫ মার্চ দেশে ফেরেন তিনি। সেখানে কেমোথেরাপি নেওয়ার পর শারীরিক অবস্থার অনেকটা উন্নতি হয়েছিল তার। একই বছরের জুনে আবারও থেরাপির জন্য ব্যাংকক যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু আর্থিক সংকটের কারণে পরে আর তার সেখানে যাওয়া হয়ে ওঠেনি।


লাইক এবং শেয়ার করুন
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও অন্যান্য সংবাদ