,

AD
নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

মমতাকে খুন করলে ইনাম ১১লক্ষ‌ টাকা, সংঘ পরিবারের ফতোয়ায় উত্তাল সংসদ

লাইক এবং শেয়ার করুন

সুকুমার মিত্র, কলকাতা প্রতিনিধি # মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে এক ভারতীয় জনতা পার্টি(বিজেপি) যুব নেতার খুনের ফতোয়া। মঙ্গলবার বীরভূমের সিউড়িতে হনুমান জয়ন্তীর মিছিলে পুলিশ লাঠিচার্জ করে বলে অভিযোগ। সেই ঘটনায় ‘ক্ষুব্ধ’ বিজেপি যুব মোর্চার নেতা যোগেশ ভার্সনে ঘোষণা করেন, বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মাথা যে এনে দিতে পারবেন, তাঁকে তিনি ১১ লক্ষ টাকা পুরস্কার দেবেন!।বিজেপির যুব মোর্চা নেতার এই বক্তব্যকে কেন্দ্র করে আজ ঝড় উঠল সংসদে।রাজ্য তথা দেশের বিশিষ্ট জনেরা ঘটনায় তীব্র নিন্দা প্রকাশ করেছেন।
এদিন রাজ্যসভায় তীব্র প্রতিবাদ জানান জয়া বচ্চন। কদর্য হুমকি দেওয়া সত্ত্বেও কেন আলিগড়ের ওই যুব নৈতার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে না, জানতে চাইলেন জয়া। তাঁর উপর হামলা নিয়ে পাল্টা শোরগোল তুললেন বিজেপির রূপা গাঙ্গুলিও। সংসদের দুই কক্ষেই বিজেপি নেতার ফতোয়া নিয়ে সরব হয় তৃণমূল কংগ্রেস।
এদিন লোকসভায় বিষয়টি তোলেন সৌগত রায়। চটজলদি ফতোয়ার নিন্দা করেন সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী । বিজেপি যুব নেতার ফতোয়ার নিন্দা করেছেন মুক্তার আব্বাস নকভি। তবে, ঘটনার নিন্দা করেও রাজ্য সরকারের কোর্টেই বল ঠেলেছেন সংসদ বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী। পশ্চিমবঙ্গে এই ধরণের সংস্কৃতি কোনওমতেই বরদাস্ত করা হবে না। সাফ বক্তব্য তৃণমূল সাংসদের।

অবিলম্বে হুমকি যিনি দিয়েছেন সেই বিজেপি নেতাকে গ্রেফতারের দাবি তুলে ঘটনায় উদ্বেগ ও বিচলিত ইউনাইটেড কমিউনিস্ট পার্টি অফ ইন্ডিয়া। পার্টির রাজ্য কমিটির সহ সম্পাদক উজ্জ্বল সেনগুপ্ত এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন সংঘ পরিবার মহাত্মা গান্ধিকে খুন করেছে। রাজনীতি যখন দেউলিয়া হয়ে যায় তখন শুরু হয় খুনের রাজনীতি। 


লাইক এবং শেয়ার করুন
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

আরও অন্যান্য সংবাদ