তাহমিনার জখমে ফিরে এলো খাদিজার স্মৃতি

ছাত্রলীগ নেতা বদরুল আলমের চাপাতির কোপে এখনও শয্যাশায়ী কলেজছাত্রী খাদিজা বেগম নার্গিস। সেই স্মৃতির ক্ষত শুকাতে না শুকাতে এবার মুন্সিগঞ্জের সিরাজদীখান উপজেলায় তাহমিনা আক্তার (১৬) নামে এক স্কুলছাত্রীকে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে উপজেলার রশুনিয়া ইউনিয়নের চোরমর্দন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তাহমিনা ইউনিয়নের রশুনিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণীর ছাত্রী এবং চোরমর্দন গ্রামের তবিজ উদ্দিনের মেয়ে।

সিরাজদীখান থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান জানান, সন্ধ্যায় ওই ছাত্রীকে একা পেয়ে তার ঘরে ঢুকে দু’তিনজন যুবক এলোপাথাড়ি কোপাতে শুরু করে। তাহমিনার আর্তচিৎকারে পরিবারের অন্যরা ছুটে এলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। পরে আশংকাজনক অবস্থায় তাহমিনাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তাহমিনার জ্ঞান না ফেরায় ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের বিষয়ে কিছু জানা যায়নি বলেও জানান ওসি। স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন খাদিজা এরআগে গত ৩ অক্টোবর প্রেমে প্রত্যাখ্যাত হয়ে সিলেটে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা বদরুল আলম প্রকাশ্যে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে খাদিজা বেগম নার্গিসকে।

পরে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। অবস্থার অবনতি হলে ৪ অক্টোবর ভোরে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে আনা হয়। ওইদিনই নার্গিসের শরীরে অস্ত্রোপচার করা হয় এবং ৯৬ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে রাখা হয়। তার অবস্থার উন্নতি হলে ১২ অক্টোবর লাইফ সাপোর্ট খুলে দেয়া হয়।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
৪৬ বার পঠিত
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com