এম এন লারমার আদর্শকে ধারণ করতে হবে : সন্তু লারমা

প্রান্ত রনি, রাঙামাটি: পাহাড়ের জুম্ম জনগণের জাতির পিতা হিসেবে পরিচিত মানবেন্দ্র নারায়ণ লারমার(এমএন লারমা) ৩৩তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বৃহস্পতিবার সকালে প্রভাতফেরী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকালে রাঙামাটি শিল্পকলা একাডেমি থেকে প্রভাত ফেরী শুরু হয়ে শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে শিল্পকলা একাডেমিতে এসে মানবেন্দ্র নারায়ণ লারমার প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানানো হয়। প্রভাত ফেরী শেষে শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির রাঙামাটি জেলার সভাপতি সুবর্ণ চাকমার সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি ছিলেন চাকমা সার্কেল চিফ ব্যারিস্টার দেবাশীষ রায়। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন আঞ্চলিক পরিষদের চেয়ারম্যান ও এমএন লারমার ছোট ভাই জ্যোতিরিন্দ্র বোধিপ্রিয় লারমা(সন্তু লারমা), আদিবাসী ফোরামের সভাপতি প্রকৃতি রঞ্জন চাকমা, অধ্যাপক মংসানু মারমা, কবি ও সাহিত্যিক শিশির চাকমা।

বক্তারা এমএন লারমা’র আদর্শকে বুকে লালন করে যুবসমাজকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। বক্তারা বলেন, এখন আমাদের অস্তিত্বের সঙ্কট। এই সঙ্কট মোকাবেলায় এমএন লারমার আদর্শে উজ্জীবিত হতে হবে। জাতির জন্য তাঁর যে ত্যাগ, সেই ত্যাগের মর্ম উপলব্ধি করে আমাদেরকে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। চুক্তি বাস্তবায়নের আন্দোলনেও সকলকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান বক্তারা। উলেখ্য,১৯৮৩ সালের ১০ নভেম্বর নিজের প্রতিষ্ঠিত সাবেক গেরিলা সংগঠন শান্তিবাহিনীর বিদ্রোহী অংশ প্রীতি গ্রুপের হাতে নিহত হন এমএন লারমা।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
৩৬ বার পঠিত
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com