খালেদা জিয়াকে মামলা দিয়ে সরকার তাদের কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দিয়েছে : নজরুল ইসলাম খান

৩১ বার পঠিত

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া মুক্তিযুদ্ধে শহীদের সংখ্যা প্রশ্ন তোলেননি। তার বক্তব্যে দেশদ্রোহিতার কোনো উপাদান নেই। সরকার খালেদা জিয়াকে রাজনীতি করতে দিতে চায় না বলে মিথ্যা মামলা দিয়েছে। রাজনৈতিক মামলা হতে পারে; কিন্তু একজন রাজনীতিবিদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা অপমানজনক ও অসম্মানজনক। সরকার এই মামলা দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছে। সেইসঙ্গে এই মামলা দিয়ে সরকার তাদের কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দিয়েছে।

 

আজ (শনিবার) দুপুরে রাজধানীর পুরানা পল্টনে ফটোজার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন মিলনায়তনে, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি (জাগপা) আয়োজিত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকার মতো মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের নামের তালিকা করার দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা যারা মুক্তিযুদ্ধ করেছি, মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা হয়েছে, হচ্ছে। আমরা সম্মানী ভাতা পাচ্ছি। যারা শহীদ হয়েছেন, তাদের সম্মান জানানো কি আমাদের কর্তব্য নয়?

 

নজরুল ইসলাম খান বলেন, শহীদদের নাম লিপিবদ্ধ করতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সরকারের আমলে বিচারপতি সাত্তারের নেতৃত্বে ১২ সদস্যের একটি কমিটি করা হয়েছিল। ওই কমিটি প্রথমে ২৮ হাজার শহীদের নাম লিপিবদ্ধ করেছিল। কিন্তু এটা কারও কাছে বিশ্বাসযোগ্য নয়। পরবর্তীতে দুই লাখের বেশিসংখ্যক নাম অন্তর্ভুক্ত হয়েছিল। সাংবাদিক ডেভিড ফ্রস্টের সঙ্গে কথা বলার সময় শেখ মুজিবুর রহমান বলেছিলেন, ‘থ্রি মিলিয়ন’। তারপর থেকে এটাই শহীদের সংখ্যা ধরা হয়। ডিসেম্বরে মুক্তিযোদ্ধাদের এক অনুষ্ঠানে বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ‘মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের সংখ্যা নিয়ে বিতর্ক আছে’ বলে মন্তব্য করেছিলেন। এ অভিযোগে তার বিরুদ্ধে সম্প্রতি রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা হয়েছে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com