,

AD
নববার্তা.কম এর সংবাদ পড়তে লাইক দিন নববার্তা এর ফেসবুক ফান পেজে

মামলা দিয়েই মেয়র পদে থাকতে চান পাপলু

লাইক এবং শেয়ার করুন

গোলাপগঞ্জ প্রতিনিধি : গোলাপগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে শোচনীয়ভাবে পরাজিত হয়ে এবার মামলা দিয়েই মেয়র পদে থাকতে চান পাপলূ। দুইবারের নির্বাচতি গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলু সদ্য অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ৩য় স্থান লাভ করেছেন ।

গতকাল বুধবার হাইকোর্টে গোলাপগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচনী ফলাফলের গেজেট প্রকাশের স্থগিতাদেশ চেয়ে একটি রিট পিটিশন করেছেন পৌরসভার বাদে রনকেলী গ্রামের নানু মিয়া নামে এক ব্যাক্তি । খোজঁ নিয়ে জানাযায় এই মামলার পেছনে নেপথ্যে রয়েছেন পৌরসভার সদ্য পরাজিত মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলু ও তার ভাই আব্দুল আহাদ বাবলু আদলত গেজেট প্রকাশে সাময়িক স্থগিতাদেশ দিয়ে রুল জারী করেছেন বলে জানাগেছে । এদিকে গোলাপগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচন ঠেকাতে নির্বাচনের আগের দিন পর্যন্ত বিভিন্ন জনকে বাদী সাজিয়ে ৫টি রিট মামলা করিয়েছিলেন এই পাপলু ।

সবকটি রিট আদালতে মোকাবেলা করে নির্বাচন নিশ্চিত করতে অগ্রনী ভূমিকা পালন করেন সদ্য নির্বাচিত মেয়র সিরাজুল জব্বার চৌধুরী ।এদিকে ‘আমরা গোলাপগঞ্জবাসী’ নামক সামাজিক সংগঠন গত বছরের ২৫ ও ২৬মে সিলেটে সংবাদ সম্মেলন করে গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলুকে মামলাবাজ ও গণদুশন বলে আখ্যায়ীত করে । সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় পাপলু তার বিরোধীমতকে দমন করতে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করে থাকেন । তার মামলা থেকে রেহাই পাননি পৌরসভার কর্মকর্তা কর্মচারী , কাউন্সিলর, চিকিৎসক, সাংবাদিক সহ অনেকে । সম্প্রতি স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় সিলেট শাখা গোলাপগঞ্জ পৌরসভা অফিস পরিদর্শন করলে ব্যাপক অনিয়ম দূর্নীতির সন্ধান পান। তদন্তে দেখা যায় ৩ বছরে প্রায় সাড়ে ৫ কোটি টাকার অনিয়ম করেছেন পাপলু,।এবিষয়ে স্থানীয় সরকারের ৩২টি অডিট আপত্তির একটিরও জবাব দিতে পারেননি তিনি। গোলাপগঞ্জের অভিজ্ঞ মহলের ধারনা নির্বাচিত মেয়রের কাছে দায়ীত্ব হস্তানান্তরের সময় হিসেব বুজিয়ে দিতে পারবেননা পাপলু ফলে দুদকের মামলায় জেলে যেতে হতে পারে তাই মামলা দিয়ে ক্ষমতা ধরে রাখার সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।


লাইক এবং শেয়ার করুন
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

আরও অন্যান্য সংবাদ