মুসলিম মানেই সবাই উগ্রবাদী, এই ধারণা ঠিক নয় : পশ্চিমবঙ্গের পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম

এই সংবাদ ৩৪ বার পঠিত

মুসলিম মানেই সবাই উগ্রবাদী, এই ধারণা ঠিক নয় বলে মন্তব্য করলেন পশ্চিমবঙ্গের পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। বুধবার বিধানসভায় ‘অসহিষ্ণুতা’ ইস্যুতে বক্তব্য রাখার সময় এই মন্তব্য করেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি বলেন, ‘আমার অপরাধ আমি ফিরহাদ হয়ে জন্মেছি বলে। এই দেশ আমারও, আমি এই মাটিতেই জন্মেছি। এই মাটিতেই আবার মিশে যাব। উগ্রবাদের নামে যা হচ্ছে, তা অন্যায় হচ্ছে। তবে মুসলমান মানেই সবাই উগ্রবাদী এই ধারণা ঠিক নয়।’

 

ফিরহাদ বলেন, ‘আমরা সকলেই হিন্দুস্তানি। কিন্তু একটা আতঙ্ক সৃষ্টির চেষ্টা চলছে। তার প্রতিবাদ করতে হবে। মহাত্মা গান্ধী, ইন্দিরা গান্ধী, রাজীব গান্ধীকে কোনো মুসলমান হত্যা করেনি। মহাত্মা গান্ধীকে হত্যা করেছে আরএসএস।’ আলোচনায় অংশ নিয়ে কংগ্রেস তৃণমূল বিধায়ক তাপস রায় দেশে অসহিষ্ণুতার যেসব ঘটনা ঘটছে তা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, এদেশে প্রেসিডেন্ট হয়েছেন একজন সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের। কিন্তু এখন যা ঘটছে তাতে প্রবাসী ভারতীয়দের লজ্জায় মাথা হেঁট হয়ে যাচ্ছে।’

 

আরএসপি বিধায়ক সুভাষ নস্কর বলেন, ‘হিন্দু রাষ্ট্র তৈরির চেষ্টা চলছে। দেশের কয়েকটি জায়গায় যা ঘটছে তা অত্যন্ত লজ্জাজনক।’ সিপিআই(এম) নেতা তথা রাজ্যে বিরোধী দলনেতা সূর্যকান্ত মিশ্র আরএসএসকে সন্ত্রাসবাদী সংগঠন বলে অভিহিত করেন। তিনি বলেন, ‘দেশে আগেও বিজেপি সরকার ছিল, কিন্তু এরকম বিপদ আসেনি। প্রধানমন্ত্রী মোদির নাম না করে সূর্যকান্ত মিশ্র বলেন, ‘এখন যিনি প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন তিনি আরএসএস-এর সম্প্রচারক। এটাই বিপদ। আরএসএস-এর মতো সন্ত্রাসবাদী সংগঠন বিজেপি’কে পরিচালনা করছে।’

 

এদিন সরকারি দলের (তৃণমূল) মুখ্যসচেতক শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় বলেন, এই দেশ ধর্মনিরপেক্ষ। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে ধর্মের নামে উন্মাদনা সৃষ্টি করা হচ্ছে।’ ‘সংখ্যাগুরু মানুষদের কাজ সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা দেয়া’ বলেও মন্তব্য করেন শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com