‘নিজস্ব অর্থায়নেই পদ্মা সেতু হচ্ছে’ : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

এই সংবাদ ৩৫ বার পঠিত

পদ্মা সেতুর মূল কাজের উদ্বোধন করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, “কারো কাছে ভিক্ষা করে নয়, হাত পেতে নয়, আমরাও পদ্মাসেতুর মতো একটা বিশাল সেতু নিজস্ব অর্থায়নে নির্মাণ করতে পারি। সেই যোগ্যতা ও কর্মক্ষমতা আমরা অর্জন করেছি।” স্বপ্নের পদ্মা সেতু নির্মাণে মানুষের আন্তরিকতা ও সহযোগিতা অতুলনীয় বলে মন্তব্য করেন শেখ হাসিনা।

 

পদ্মাসেতুর মূল কাজের উদ্বোধন শেষে বিকেলে মুন্সীগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক জনসভায় এ সব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। বেলা ১২টা ৫৫ মিনিটে আনুষ্ঠানিকভাবে পদ্মাসেতুর পাইলিংয়ের কাজের উদ্বোধন করেন তিনি। প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শেষ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সেতুর পাইলিংয়ের কাজ শুরু হয়ে যায়। মাইকে ঘোষণা করা হয়, ব্যবস্থাটি এমনভাবে করা ছিল, যাতে প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের পরই পাইলিং শুরু করা যায়।

 

মুন্সীগঞ্জের জনসভায় শেখ হাসিনা আরও বলেন, “পদ্মা সেতুর মূল নির্মাণকাজ আজকে আমরা শুরু করলাম। এটি ছিল এলাকার মানুষের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন। আপনারা নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে জয়ী করেছেন। আমরা সরকার গঠন করেছি। গঠনের পর থেকে এই সেতু নির্মাণের কাজ শুরু করি। একটা পর্যায়ে আমাদের ওপর মিথ্যা দোষ চাপিয়ে অর্থ প্রত্যাহার করে ওয়ার্ল্ড ব্যাংক। আমি দুর্নীতি করতে আসি নাই। জনগণের জন্য কাজ করতে এসেছি। আমাকে প্রমাণ দিতে হবে। কিন্তু তারা প্রমাণ দিতে পারে নাই।“

 

তিনি বলেন, “আমরা আমাদের নিজের টাকায় এই বৃহৎ সেতু নির্মাণের কাজ শুরু করেছি। আমরা মুক্তিযুদ্ধ করে বিজয় অর্জন করেছি। আমরা মুক্তিযুদ্ধে বিজয়ী একটি জাতি। বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন, ‘এই জাতিকে কেউ দাবায় রাখতে পারবা না।’ কেউ দাবায়ে রাখতে পারে নাই। আমরা বিজয়ী জাতি হিসেবে বিশ্বসভায় মাথা উঁচু করে চলতে চাই।”

 

শেখ হাসিনা বলেন, “পদ্মা সেতু নির্মাণে সবার সহযোগিতা কাম্য। এপার-ওপার দুই পারের মানুষ সহযোগিতা করে যাচ্ছে। সে জন্য ধন্যবাদ।” পদ্মা সেতু হলে বাংলাদেশ উন্নতি ও সমৃদ্ধির পথে আরও একধাপ এগিয়ে যাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, “আমাদের কাছে কোনো দাবি করতে হবে না। আমরা জানি, কোথায় কী লাগবে। বাংলাদেশকে উন্নত ও সমৃদ্ধ করতে যা কিছু প্রয়োজন, সব করে দিচ্ছে আওয়ামী লীগ। কারণ, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মানুষকে অন্তর থেকে ভালোবাসে।”

 

‘আওয়ামী লীগের লক্ষ্য মানুষের সেবা করা, মানুষকে পুড়িয়ে মারা নয়’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, “আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে সরকার গঠন করেছি বলেই আমরা উন্নয়নে কাজ করতে পারছি। পদ্মাসেতুর মতো বৃহৎ প্রকল্পও এখন বাস্তবায়নের পথে।” বিএনপি-জামায়াতের সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “১৯৭১ সালে যেভাবে পাকিস্তানী হায়েনারা মানুষকে পুড়িয়ে মেরেছিল, ঠিক তেমনিভাবে বিএনপি-জামায়াত জোট মানুষকে পুড়িয়ে মারার ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়ে যাচ্ছে। মানুষের কল্যাণ তারা করে না, তারা তা চায়ও না। তারা লুটপাট, দুর্নীতি করতে পারে।” প্রধানমন্ত্রী সকালে হেলিকপ্টারে করে শরীয়তপুরের জাজিরায় যান। সেখানে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তিনি পদ্মা সেতুর নদীশাসন কাজের উদ্বোধন করেন।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com