পশ্চিমবঙ্গের রাজধানী কলকাতার তিলজলার একটি কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড, ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

আজ (শনিবার) সকালে মধ্য কোলকাতার মসজিদবাড়ি লেনে একটি চামড়ার ব্যাগ তৈরির কারখানায় আগুন ধরে যায়। ওই সময় কারখানাটি বন্ধ থাকায় হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি। দুর্ঘটনার কবলে পড়া ওই কারখানাটির মধ্যে দাহ্য পদার্থ থাকায় দ্রুত আগুন আশেপাশের এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে পার্শ্ববর্তী এলাকা থেকে মানুষজনকে অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। সূত্রে প্রকাশ, কারখানাটি আগুনে পুড়ে যাওয়ায় ক

য়েক লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

কারখানাটিতে আগুন লাগার খবর পেয়ে প্রথমে স্থানীয় বাসিন্দারা আগুন নেভানোর কাজে হাত লাগান। পরে খবর পেয়ে ফায়ার ব্রিগেডের ১২ টি ইঞ্জিন আগুন নেভানোর জন্য ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। ততক্ষণে অবশ্য আগুন অনেকটাই ছড়িয়ে পড়ে। এলাকাটি ঘন জনবসতিপূর্ণ হওয়ায় অগ্নিনির্বাপক গাড়িগুলোকে ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে যথেষ্ট বেগ পেতে হয়। অবশেষে প্রায় চার ঘণ্টার প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

রাজ্যের দমকল মন্ত্রী জাভেদ খান জানান, ‘সংশ্লিষ্ট ওই কারখানাটিতে আগুন নেভানোর কোনো ব্যবস্থা ছিল না এমনকি পর্যাপ্ত পানির ব্যবস্থাও ছিল না।’ স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, ফায়ার লাইসেন্স ছাড়াই চলছিল ওই কারখানাটি। বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে কারখানাটিতে আগুন লেগে থাকতে পারে বলে ফায়ার ব্রিগেডের প্রাথমিক তদন্তে ধারণা করা হচ্ছে। পুলিশ আগুন লাগার কারণ অনুসন্ধানে তদন্ত শুরু করেছে।

ফেসবুক থেকে মতামত দিন
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
২০ বার পঠিত

Leave a Reply